Help line: 01790-181018

FBB040. আইবুড়ো বোতাম ফুল (40)/Bachelor's Button/Gomphrena Flower

কিছু সৌন্দর্য এমন রয়েছে যা তুলনা করে বোঝানো যায় না-যেমন স্বীয় পোষাকের সাঁজসজ্জা তাজা ম্যাজেন্টা ফুলে গাঁথা-আর তা যদি হয় বোতাম ফুল । দেখতে বোতামের(Button) মতো তাই বাংলা নাম বোতাম ফুল । ইউরোপিয়ান ইংরেজী নাম Bachelor’s button অর্থাৎ আইবুড়ো বা অবিবাহিতদের বোতাম ফুল । সে সময় ইউরোপে অবিবাহিত যুবক বা পাত্রের পরিচয় মিলত তাদের পোষাকে গাঁথা বোতাম ফুল দেখে । শুকানোর পরেও এই ফুলের আকার এবং রঙ ঠিক থাকে তাই বেশ খানিকটা সময় পাওয়া যেতো মেয়ে বা পাত্রী খোঁজার জন্য । সেই থেকে এই নাম-আইবুড়ো বোতাম ফুল আর বিবাহোত্তর নাম-অমর প্রেমের প্রতীক । শুধু মন নয় ইহা ক্ষুদ্র-স্থানীয়ভাবে শরীরকেও অবশ করে ( Micro local anesthesia ) আর এ জন্যই অবিবাহিতা মেয়েদের নাক ও কান ফোঁড়ানোর আগে ডাটা সমেত বোতাম ফুল বেটে যথাস্থানে লাগাতে হয় । ফুল দেখতে উৎসব বা বিয়ে বাড়ীর আতশবাজির (বৈদ্যুতিক স্পার্ক বা রঙিন আলো শিখার ঝলকানি ) ন্যায় । স্পর্শে পাপোষের ন্যায় তাই বিভিন্ন উৎসব-সাঁজসজ্জায় ও বিশেষ করে বিবাহ মঞ্চে ফুলেল কার্পেট তৈরিতে বোতাম ফুলের বহুল ব্যবহার পরিলক্ষিত হয় ।
SKU: FBB040
€43.00
Ship to
*
*
Shipping Method
Name
Estimated Delivery
Price
No shipping options




বোতাম ফুলের বৈজ্ঞানিক নাম Gomphrena globosa ল্যাটিন অর্থে Gomphrena হলো অমরত্বের প্রতীক আর globosa শব্দটি এসেছে ফুলটি দেখতে গ্লোব বা ভূগোলক আকৃতির তাই । সাধারণভাবে ইহা Globe amaranth নামেও পরিচিত অর্থাৎ ফুলটি লাল শাকের দূর-সম্পর্কের আত্মীয় ও সেই সুবাদে ইহা একটি ভোজ্য উদ্ভিদ ।

বোতাম ফুলের ঐতিহ্যগত-উল্লেখযোগ্য ভেষজ ব্যবহার:

শোভাময় তো বটেই বরং ইহা একটি বিস্ময়কর ফুল বিশেষ; বিশেষ করে ভেষজ বা ঔষধি ব্যবহারের ক্ষেত্রে । ইহা ক্ষুদ্র-স্থানীয়ভাবে শরীরকে অবশ করে (Micro local anesthesia) আর এ জন্যই গ্রামাঞ্চলে মেয়েদের নাক ও কান ফোঁড়ানোর আগে ডাটা সমেত বোতাম ফুল বেটে যথাস্থানে লাগাতে হয় । একই নিয়মে পোড়া দাগ দূরীকরন ও ভাঙ্গা হাড় জোড়া লাগাতেও এর ব্যাবহার বহুল প্রচলিত ।

বোতাম ফুলের চা(Gomphrena Flower Tea):

চা তৈরির নিয়ম: ফুটন্ত পানিতে তাজা বা শুকনো ফুল ফেলুন+লেবুর রস+ভালোভাবে নাড়ুন (১০-১৫ মিনিট)+যোগ করুন পরিমিত চিনি বা মধু=প্রস্তুতকৃত পানীয় ছেঁকে পান করুন । 

শান্ত-সুবাস সহ এই পুষ্প  চা একদিকে যেমন ক্যাফেইন মুক্ত অপরদিকে তেমনি অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট, ভিটামিন এবং মিনারেলে ভরপুর । ইহা যে কোন বিষাক্ততা থেকে শরীরকে শুদ্ধ রাখতে সাহায্য করে । হালকা ভেষজ মিষ্টিযুক্ত এই চা ডায়াবেটিসের জন্য খুবই ভালো । টাটকা তৈরিকৃত বোতাম ফুলের চা ক্লান্তি-অবসাদ-মানষিক চাপ-নাক থেকে রক্তপাত ও মাথাব্যথা উপশম হয় দৃষ্টিশক্তি বাড়াতে চীনা জনগন এই চা-কে খুব ভালো করেই চেনে ।

বোতাম আকৃতির গড়ন ও কাগুজে গ্রথণের যে অংশকে আমরা ফুল বলি তা আদতে ফুল নয় বরং Bract বা মঞ্জরীপত্র (রূপান্তরিত পত্র)-যা কীট পতঙ্গকে আকর্ষণের কাজে ব্যবহার হয় । চারদিকে যে ছোট ফুল দেখা যায় সেগুলিই প্রকৃত ফুল । গ্রীষ্ম ও শরতের শুরু থেকে অবিরাম ফুল ফোটে । গন্ধবিহীন ১২ মাসী ফুল । কোন রকম যত্ন ছাড়াই এক সাথে অনেক ফুল অনেক দিন ফুঁটে থাকে । সংস্কৃতে ইহা রক্ত ​​মল্লিকা নামে পরিচিত । বোতাম ফুল গুল্মজাতীয় চিরসবুজ ফুলগাছ যার আদি নিবাস ভারতীয় উপমহাদেশের হিমালয় অঞ্চল আর নেপাল হলো হিমালয়ের কন্যা । প্রতীকী সুরক্ষা ও বেশ স্থায়ী পুষ্পমাল্য হিসাবে নেপালী বোনেরা তাদের ভাইয়ের গলায় বোতাম ফুল বা মখমলীর মালা পরিয়ে দেয় । বীজ থেকে সহজেই জন্মে । গাছটি ২ ফুট পর্যন্ত বাড়ে । খরা সহিষ্ণু C 4 (সালোকসংশ্লেষণের ফলে উৎপাদিত প্রথম স্থায়ী যৌগ ৪ কার্বন বিশিষ্ট অক্সালো এসিটিক এসিড) উদ্ভিদ ।

Write Your Own Review

Only registered users can write reviews